ঢাবির ভর্তি পরীক্ষা ১ অক্টোবর

আগামী ১ অক্টোবর থেকে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) ২০২০-২১ শিক্ষাবর্ষের স্নাতক (সম্মান) প্রথম বর্ষের ভর্তি পরীক্ষা শুরু হচ্ছে।

এ বছর প্রথমবারের মতো ঢাকাসহ দেশের ৮টি বিভাগীয় শহরের প্রধান বিশ্ববিদ্যালয়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি পরীক্ষা নেওয়া হবে।

আজ বুধবার দুপুরে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আবদুল মতিন চৌধুরী ভার্চুয়াল শ্রেণিকক্ষে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য ভর্তি জালিয়াতির বিরুদ্ধে জিরো টলারেন্স থাকবে বলে জানিয়েছেন।

উপাচার্য মো. আখতারুজ্জামান বলেন, ‘যেকোনো ধরনের অসদুপায় ও ডিজিটাল জালিয়াতি মূলোৎপাটনে আমরা কার্যকর উদ্যোগ নিয়েছি। যারা ডিজিটাল জালিয়াতির চক্র, মূল হোতা হিসেবে ভর্তি পরীক্ষাকে প্রশ্নবিদ্ধ করতেন, তাদের চিহ্নিত করে আইনের আওতায় নেওয়া হয়েছে।

জালিয়াতির মাধ্যমে যারা বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি হয়েছিলেন, তাদের আমরা শনাক্ত করেছি। ভর্তি বাতিলসহ বহিষ্কার করে তাদের আইনের আওতায় আনা হয়েছে। এক্ষেত্রে সবার সহযোগিতা ছিল।

এবারের ভর্তি পরীক্ষায়ও যখন যেখানেই চিহ্নিত হবে, বিশ্ববিদ্যালয় খুব কঠিন অবস্থানে থাকবে। জালিয়াতি প্রতিরোধে বিশ্ববিদ্যালয়ের জিরো টলারেন্স থাকবে। কোথাও কোনো ত্রুটি-বিচ্যুতি নজরে এলে তাৎক্ষণিকভাবে বললে ডিনরা সংশোধন করতে পারবেন।’

তিনি আরও বলেন, ‘অভিভাবক ও শিক্ষার্থীদের ভোগান্তি লাঘব এবং সময়, শ্রম ও অর্থ সাশ্রয়ের জন্য ঢাকাসহ ৮টি বিভাগীয় শহরে ভর্তি পরীক্ষা নেওয়ার সিদ্ধান্ত হয়েছে। আগে সাধারণত সকাল ১০টা থেকে ভর্তি পরীক্ষা শুরু হতো, এবার প্রতিটি পরীক্ষা শুরু হবে সকাল ১১টা থেকে।

শিক্ষার্থীরা যাতে যথাসময়ে কেন্দ্রে আসতে পারেন এবং দিনের মধ্যেই পরীক্ষা দিয়ে ফিরে যেতে পারেন, সে জন্যই এই সিদ্ধান্ত। সহযোগী প্রতিষ্ঠান হিসেবে ৭ বিভাগের ৭টি বিশ্ববিদ্যালয় আমাদের হয়ে পরীক্ষা কার্যক্রম পরিচালনা করবে।’

Related Posts
1 of 117

সার্বিক সহযোগিতার জন্য সহযোগী বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর উপাচার্যসহ সংশ্লিষ্ট সবাইকে ধন্যবাদ জানান তিনি৷

পরীক্ষার তারিখ ও মানবণ্টন

আগামী ১ অক্টোবর বিজ্ঞান অনুষদভুক্ত ক ইউনিটের পরীক্ষার মধ্য দিয়ে শুরু হবে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের এবারের ভর্তি পরীক্ষা। এরপর ২ অক্টোবর কলা অনুষদভুক্ত খ ইউনিট, ৯ অক্টোবর চারুকলা অনুষদভুক্ত চ ইউনিট (বহুনির্বাচনী), ২২ অক্টোবর ব্যবসায় শিক্ষা অনুষদভুক্ত গ ইউনিট ও ২৩ অক্টোবর অনুষ্ঠিত হবে সামাজিক বিজ্ঞান অনুষদভুক্ত ঘ ইউনিটের পরীক্ষা। পরীক্ষা শুরু হবে বেলা ১১টা থেকে।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রতিটি ইউনিটে এবার মোট ১২০ নম্বরের ভর্তি পরীক্ষা হবে। সেখানে মূল পরীক্ষায় (বহুনির্বাচনী ও লিখিত) ১০০ এবং এসএসসি ও এইচএসসি পরীক্ষার ফলাফলের ওপর ১০ করে মোট ২০ নম্বর থাকবে। ক, খ, গ ও ঘ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষায় ৬০ নম্বরের বহুনির্বাচনী এবং ৪০ নম্বরের লিখিত অংশ থাকবে। উভয় অংশের জন্য ৪৫ মিনিট করে সময় থাকবে। তবে চ ইউনিটের ৪০ নম্বরের বহুনির্বাচনী পরীক্ষার জন্য ৩০ মিনিট আর ৬০ নম্বরের অঙ্কন পরীক্ষার জন্য ৪৫ মিনিট সময় বরাদ্দ থাকবে।

গত বছর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ২০২০-২১ শিক্ষাবর্ষের ভর্তি পরীক্ষা হওয়ার থাকলে করোনা পরিস্থিতির কারণে তা পিছিয়ে যায়।

প্রতি আসনের বিপরীতে লড়বে ৪৫ জন

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ৫টি ইউনিটে ৭ হাজার ১৪৮টি আসনের বিপরীতে এবার মোট আবেদন করেছেন ৩ লাখ ২৪ হাজার ৩৪০ জন। সে হিসেবে প্রতি আসনের বিপরীতে লড়বেন ৪৫ জন।

ক ইউনিটে ১ হাজার ৮১৫ আসনের বিপরীতে ১ লাখ ১৭ হাজার ৯৫৭ জন আবেদন করেছেন। প্রতি আসনের জন্য লড়বেন ৬৫ জন।  খ ইউনিটে ২ হাজার ৩৭৮ আসনের বিপরীতে ৪৭ হাজার ৬৩২ জন আবেদন করেছেন। প্রতি আসনের বিপরীতে লড়বে ২০ জন।

গ ইউনিটে ১ হাজার ২৫০ আসনের বিপরীতে ২৭ হাজার ৩৭৪ জন আবেদন করেছেন। প্রতি আসনের বিপরীতে লড়বে ২২ জন। ঘ ইউনিটে ১ হাজার ৫৭০ আসনের বিপরীতে ১ লাখ ১৫ হাজার ৮৮১ জন আবেদন করেছেন। প্রতি আসনের বিপরীতে লড়বেন ১১৫ জন।

ঢাকা বিভাগের ভর্তি পরীক্ষার কেন্দ্র ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাস। এ ছাড়া অন্য যে সাতটি বিভাগীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের এবারের ভর্তি পরীক্ষা হবে, সেগুলো হলো রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়,

বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় (ময়মনসিংহ), খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়, শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (সিলেট), বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয় এবং বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয় (রংপুর)৷

এর মধ্যে ৫ ইউনিটের ১ লাখ ৬৪ হাজার ৬০৬ জন শিক্ষার্থী ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রে পরীক্ষা দেবেন৷ সবচেয়ে কম ৭ হাজার ৯১ জন পরীক্ষা দেবেন সিলেটের শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রে৷

Leave A Reply

Your email address will not be published.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More