Uncategorized

প্রেমের টানে হিন্দু ছেলের সাথে পালিয়ে গেল মুসলিম কিশোরী

জুমবাংলা ডেস্ক : প্রেমের টানে সুনামগঞ্জের ছাতক উপজেলা থেকে এক কিশোরী সিলেটের বিশ্বনাথ উপজেলার

এক সনাতন ধর্মাবলম্বী তরুণের হাত ধরে পালিয়ে এসেছে। ওই তরুণের নাম মৃদুল দাশ (১৯)।

সে স্থানীয় খাজাঞ্চী ইউনিয়নের চন্দ্রগ্রাম গ্রামের নির্মল দাশের ছেলে। শনিবার দুপুরে মৃদুল দাশ বাড়ি থেকে কিশোরীসহ দুজনকে থানায় নিয়ে আসে পুলিশ।

জানা গেছে, মৃদুল দাশ ছাতক উপজেলা সদরের মধ্যবাজারে একটি দোকানে কর্মচারী হিসেবে কাজ করত। মোবাইল ফোনের মাধ্যমে তার পরিচয় হয় ওই উপজেলার নোয়ারাই গ্রামে

মা’র সাথে বসবাস করে আসা দোয়ারা বাজার উপজেলার নইনগাঁও গ্রামের ওই কিশোরীর। পরিচয় থেকে প্রণয়ে গড়ায় দু’জনের সম্পর্ক।

এভাবে প্রায় তিন বছর ধরে চলে আসছে তাদের এ প্রণয়। গতকাল শুক্রবার রাতে প্রেমিক মৃদুল দাশের সাথে পালিয়ে তার বাড়িতে চলে আসে ওই কিশোরী।

আজ শনিবার সকালে খবর পেয়ে স্থানীয় ইউপি সদস্য বখতিয়ার আহমদ মৃদুলের বাড়িতে গিয়ে উভয়ের পরিবারের উপস্থিতিতে বিষয়টি নিষ্পত্তি করার চেষ্টা করেন।

কিন্তু, দু’জনের জেদের কাছে ব্যর্থ হয় তার নিস্পত্তির প্রচেষ্টা। পরে তিনি থানা পুলিশকে বিষয়টি অবহিত করলে তারা চন্দ্রগ্রামে গিয়ে মৃদুল ও ওই কিশোরীকে থানায় নিয়ে আসে।

ইউপি সদস্য বখতিয়ার জানান, ছেলের বয়স ১৯ বছর আর মেয়ের বয়স ১৬ বছর হওয়াতে আমরা চেয়েছিলাম মেয়েটি তার পরিবারের কাছে ফিরে যাক।

কিন্তু ছেলে-মেয়ে দু’জনই দু’জনকে ছাড়া বাঁচবে না বলে জেদ ধরায় বিশেষ করে ছেলেটি প্রয়োজনে মুসলিম হবে বলে অটল থাকায় আমরা থানা পুলিশকে বিষয়টি অবহিত করি।

বিশ্বনাথ থানার অফিসার ইন চার্জ (ওসি) শামীম মূসা বলেন, এই বিষয়ে আইন অনুযায়ী পরবর্তী ব্যবস্থা নেয়া হবে।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.