নিহতদের ৪ জনই শিক্ষক, যাচ্ছিলেন ট্রেনিংয়ে

নওগাঁয় ট্রাক, ট্রাক্টর ও সিএনজিচালিত অটোরিকশার সংঘর্ষে পাঁচজন নিহত হয়েছেন। নিহতদের মধ্যে চারজনই প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক।

তারা ট্রেনিং দিতে যাচ্ছিলেন।শুক্রবার সকাল ৮টার দিকে নওগাঁ সদর উপজেলার বাবলাতলী এলাকায় নওগাঁ-রাজশাহী মহাসড়কে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

ঘটনাস্থলে উপস্থিত নওগাঁ সদর থানার ওসি নজরুল ইসলাম যুগান্তরকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।নিহত পাঁচজনের মধ্যে চারজনের বাড়ি নওগাঁর নিয়ামতপুর উপজেলায়।

তারা হলেন— নিয়ামতপুর উপজেলার বাদ নেহেন্দা গ্রামের দেলোয়ার হোসেন (৪৭), বিজলী গ্রামের মকবুল হোসেন (৫৮), ভাদরন্ড গ্রামের জান্নাতুল (৩৫) ও ডাঙ্গাপাড়া গ্রামের অটোরিকশাচালক সেলিম (৪৫)।

নিহত অপরজন হলেন গাইবান্ধার সুন্দরগঞ্জ উপজেলার লেলিন (২৬)। এদের মধ্যে দেলোয়ার, মকবুল, জান্নাতুল ও লেলিন

প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক। তারা একটি ট্রেনিংয়ে অংশ নিতে নিয়ামতপুর থেকে নওগাঁ শহরে যাচ্ছিলেন।

পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা গেছে, সিএনজিচালিত অটোরিকশাটি নিয়ামতপুর থেকে নওগাঁ শহরের দিকে আসছিল। ট্রাকটি নওগাঁ থেকে রাজশাহীর দিকে যাচ্ছিল।

নওগাঁ সদর উপজেলার বাবলাতলী এলাকায় যাত্রীবাহী অটোরিকশাটির সঙ্গে প্রথমে ট্রাকের মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়।

এর পর ছিটকে পড়া অটোরিকশাটিকে পেছন থেকে আসা ট্রাক্টরটি চাপা দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই পাঁচজনের মৃত্যু হয়।

দুর্ঘটনাকবলিত ট্রাকটি সড়কের পাশে খাদে গিয়ে পড়ে। ঘটনার পর নওগাঁ ফায়ার সার্ভিসের দুটি দল উদ্ধারকাজ শুরু করে।