মা’র জন্য পা’ত্র খুঁজছেন কলেজে পড়া মেয়ে!

মা’র জন্য পা’ত্র খুঁজছেন কলেজে পড়া মেয়ে!

Related Posts
1 of 151

যুগ যুগ ধরে প্রচলিত হয়ে আসছে, কন্যা সন্তানের জন্য পাত্র খুঁজেন বাবা-মা। ভালো পাত্র দেখে নিজের মেয়েকে তুলে দিতে পারলে স্বস্তির নিঃশ্বা’স ফেলেন তারা। তবে এবার ঘটলো সম্পূর্ণ ভিন্ন ঘটনা। এক মায়ের জন্য একজন সুদর্শনপাত্র খুঁজতে বিজ্ঞাপন দিয়েছেন এক তরুণী! বৃহস্পতিবার (৩১ অক্টোবর) টুইটারে মায়ের

n5SoNWS
Screenshot 20211104 205755 1 1n5SoNWS

স’ঙ্গে তোলা একটি সেলফি পোস্ট করে সেখানে পাত্রের সন্ধান চাওয়া হয়।জানা গেছে ওই তরুণীর নাম আস্থা ভারমা। ভারতের একটি বিশ্ববিদ্যালয়ে আইন বিভাগের ছাত্রী তিনি।

টুইটারে তিনি লিখেছেন, আমা’র প্রিয় মায়ের জন্য ৫০ বছর বয়সী হ্যান্ডসাম পুরুষ খুঁজছি! পাত্রকে অবশ্যই ভেজিটেরিয়ান ‘হতে হবে, কখনোই ম’দ্যপান করা যাব’ে না এবং সুপ্রতিষ্ঠিত ‘হতে হবে। এদিকে ওই ছাত্রীর দেয়া মায়ের জন্য

n5SoNWS
n5SoNWS
n5SoNWS
n5SoNWS
n5SoNWS
n5SoNWS

পাত্র খোঁজার পোস্টটি মুহূর্তের মধ্যে ভাইরাল হয়ে যায়।পোস্টটি দেখে মেয়েটির সাহসের প্রশংসাও করেছেন অনেকে। আবার কেউ কেউ সমালোচনাও করেছেন। তার কাছ থেকে জানতে চেয়েছেন, মায়ের পাত্র খুঁজতে কোনো ঘটক বা বিবাহ-এজেন্সির কাছে যাননি কেন?জবাবে আস্থা জানিয়েছেন,

তারা গিয়েছিলেন। কিন্তু আশানুরূপ ফল মেলেনি। তাই, বাধ্য হয়েই টুইটারের শরণাপন্ন ‘হতে হয়েছে।যুগ যুগ ধরে প্রচলিত হয়ে আসছে, কন্যা সন্তানের জন্য পাত্র খুঁজেন বাবা-মা। ভালো পাত্র দেখে নিজের মেয়েকে তুলে দিতে পারলে স্বস্তির নিঃশ্বা’স ফেলেন তারা। তবে এবার ঘটলো সম্পূর্ণ ভিন্ন ঘটনা। এক মায়ের জন্য

n5SoNWS
Screenshot 20211104 211210
n5SoNWS
n5SoNWS
n5SoNWS
n5SoNWS

একজন সুদর্শন পাত্র খুঁজতে বিজ্ঞাপন দিয়েছেন এক তরুণী! বৃহস্পতিবার (৩১ অক্টোবর) টুইটারে মায়ের স’ঙ্গে তোলা একটি সেলফি পোস্ট করে সেখানে পাত্রের সন্ধান চাওয়া হয়।জানা গেছে ওই তরুণীর নাম আস্থা ভারমা। ভারতের একটি বিশ্ববিদ্যালয়ে আইন বিভাগের ছাত্রী তিনি।

টুইটারে তিনি লিখেছেন, আমা’র প্রিয় মায়ের জন্য ৫০ বছর বয়সী হ্যান্ডসাম পুরুষ খুঁজছি! পাত্রকে অবশ্যই ভেজিটেরিয়ান ‘হতে হবে, কখনোই ম’দ্যপান করা যাব’ে না এবং সুপ্রতিষ্ঠিত ‘হতে হবে।

n5SoNWS
n5SoNWS
n5SoNWS
n5SoNWS
n5SoNWS
n5SoNWS

এদিকে ওই ছাত্রীর দেয়া মায়ের জন্য পাত্র খোঁজার পোস্টটি মুহূর্তের মধ্যে ভাইরাল হয়ে যায়।পোস্টটি দেখে মেয়েটির সাহসের প্রশংসাও করেছেন অনেকে। আবার কেউ কেউ সমালোচনাও করেছেন। তার কাছ থেকে জানতে চেয়েছেন, মায়ের পাত্র খুঁজতে কোনো ঘটক বা বিবাহ-এজেন্সির কাছে যাননি কেন?জবাবে আস্থা জানিয়েছেন, তারা গিয়েছিলেন। কিন্তু আশানুরূপ ফল মেলেনি। তাই, বাধ্য হয়েই টুইটারের শরণাপন্ন ‘হতে হয়েছে।

Comments are closed, but trackbacks and pingbacks are open.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More